Category Archives for উপন্যাস

নিঃশব্দের শিহরণ (পর্ব – ৩)

বিচিত্র এই জীবন বড় কঠিন তবুও কখনো ও বা মনে হয় চারদিক থেকে মায়ার চাদরে জড়ানো ভালোবাসার এক রুক্ষ মূর্তি। ছুঁয়ে দিয়ে হাসতে চায় মন, আবার ভালোবাসার কাছে কাদতেঁ ও চায় অঝোরে। কভু নিঃসঙ্গ তবুও কল্পনায় পাখা মেলে।উড়ে চলে হাওয়ার বুকে ডানা মেলে সেই সুদূর এ। কভু আলোড়ন তোলে প্রাণে, কভু ভাসে নয়ন জলে…….. —কাঁদছে […]

বিস্তারিত

নিঃশব্দের শিহরণ (পর্ব – ২)

কখনো কখনো ও নীল আকাশের কালো মেঘের মতোই ঢেকে যায় জীবনের হাসিগুলো। তারপর ও সেই আবছা আধারেই এগিয়ে চলে জীবন। এভাবেই চলতে চলতে একসময় কেটে যায় জীবনের উপরের কালো মেঘ। বদলে যায় জীবনের গতিধারা। এ যেন শ্রাবনের অবিশ্রান্ত বাদলের পর এ চিলতে সূর্যের আলো।জীবনের এই আবছা আলো যেন এক নিমিষেই প্রখর হয়ে ওঠে বন্ধুত্বের মুখরতায়। […]

বিস্তারিত

নিঃশব্দের শিহরণ (পর্ব – ১)

পড়ন্ত বিকেল সবেমাত্র ই তার বর্ণিল আলোয় রাঙিয়ে দিল ধরা। মুহূর্তেই চঞ্চলতার আবির ছড়িয়ে দিল ধুলিময় ধূসর এই পৃথিবীর প্রতিটি কোণায়। যদিও সে জানে এখনি সল্ধ্যার আধারে হারিয়ে যাবে সে। তবুও পড়ন্ত এই বিকেলের কেন এত আয়োজন? তবে কি আধারের গভীরে হারানোর এ হলো পূর্ব সৎকার? নাকি হাসি মুখে নিজের জায়গা খালি করার এক অকৃত্রিম […]

বিস্তারিত

‎চরাচর‬ (পর্ব – ১)

ঠাস করে চড়টা গালে এসে পড়তেই টের পেলাম।কিছুটা ব্যাথা পাচ্ছিলাম তবে অন্য কেউ হলে ওরে মারে বাবারে বলে কেদে উঠতো। আমি কাদিনি তার কারণ রোজই ওরকম দু চারটা চড় খেয়ে খেয়ে আমার অভ্যাস হয়ে গেছে।চড়টা মেরেছিল ডান গালে। সাথে সাথে আমি বা গালটা এগিয়ে দিয়ে বললাম নিন আরেকটা মারুন।দান দান দুই দান তিন দানে ছক্কা।আমার […]

বিস্তারিত